ঢাকা ০৮:৫৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিএনপির পরিণতি শাপলা চত্বরের চেয়েও খারাপ হবে: কাদের

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০২:৪২:১৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ অক্টোবর ২০২৩ ১৪৭ বার পড়া হয়েছে
NEWS396 অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

১৮ অক্টোবরের সমাবেশ থেকে বিএনপি ঢাকা অবরোধের কর্মসূচি দিতে পারে বলে দাবি করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, অবরোধ করলে বিএনপি পালাবার পথ পাবে না। শাপলা চত্বর থেকেও করুণ পরিণতি হবে বিএনপির।

সোমবার (১৬ অক্টোবর) রাজধানীর বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউতে যুবলীগ আয়োজিত যুব সমাবেশে এমন হুঁশিয়ারি দেন সেতুমন্ত্রী।

১০ বছর আগে ২০১৩ সালের ৫ মে ঢাকার শাপলা চত্বরে বিশাল সমাবেশ করে ধর্মভিত্তিক সংগঠন হেফাজতে ইসলাম। সেদিন ঢাকা অবরোধের ঘোষণা দেওয়া হয় সংগঠনটির পক্ষ থেকে। দাবি আদায়ে রাজপথ না ছাড়ার ঘোষণা দেন তারা। পরে গভীর রাতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা অভিযান চালিয়ে তাদের শাপলা চত্বর থেকে সরিয়ে দেন।

সোমবার যুবলীগ আয়োজিত সমাবেশে শাপলা চত্বরের কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে বিএনপির উদ্দেশ্যে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, শাপলা চত্বরে থেকে কী হলো শেষ রাতে? পালিয়ে গেল না? আমি বলতে চাই না, আরও করুণ পরিণতি হবে বিএনপির। শেখ হাসিনা মাথা নত করেন না, আল্লাহ ছাড়া কাউকে ভয় করেন না। বিএনপির পরিণতি শাপলা চত্বরের চেয়েও খারাপ হবে।’

ঢাকা অবরোধ করতে বিএনপি সারাদেশ থেকে নেতাকর্মী জড়ো করেছে দাবি করে ওবায়দুল কাদের বলেন, সারাদেশ থেকে লোক এনে শহরে জড়ো করছে বিএনপি। তারা ঢাকা অবরোধ করতে চায়। আমরাও প্রস্তুত আছি। অবরোধ করলে বিএনপি অবরুদ্ধ হয়ে যাবে, বিএনপিকে অবরোধ করা হবে।

বিএনপিকে কোনো ছাড় দেওয়া হবে না জানিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন, চুরি করে এসে ঢাকায় আত্মীয়-স্বজনের বাসায় জড়ো হচ্ছে, অতিরিক্ত কাপড় আনতে বলেছেন ফখরুল। তখন আমরা কি ললিপপ খাবো? আমরাও বসে থাকব না। ১৮ অক্টোবর আমরাও বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটে জমায়েত করব। আজ যা এসেছে, ওইদিন আরও বেশি আসবে।

আজকের সমাবেশে ঢাকা মহানগরের বিভিন্ন ওয়ার্ড, থানা এবং গাজীপুর জেলা ও মহানগর থেকে যুবলীগের নেতাকর্মীরা অংশ নেন।

যুবলীগ চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশের সভাপতিত্বে ও প্রচার সম্পাদক জয়দেব নন্দীর সঞ্চালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খান নিখিল।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

বিএনপির পরিণতি শাপলা চত্বরের চেয়েও খারাপ হবে: কাদের

আপডেট সময় : ০২:৪২:১৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ অক্টোবর ২০২৩

১৮ অক্টোবরের সমাবেশ থেকে বিএনপি ঢাকা অবরোধের কর্মসূচি দিতে পারে বলে দাবি করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, অবরোধ করলে বিএনপি পালাবার পথ পাবে না। শাপলা চত্বর থেকেও করুণ পরিণতি হবে বিএনপির।

সোমবার (১৬ অক্টোবর) রাজধানীর বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউতে যুবলীগ আয়োজিত যুব সমাবেশে এমন হুঁশিয়ারি দেন সেতুমন্ত্রী।

১০ বছর আগে ২০১৩ সালের ৫ মে ঢাকার শাপলা চত্বরে বিশাল সমাবেশ করে ধর্মভিত্তিক সংগঠন হেফাজতে ইসলাম। সেদিন ঢাকা অবরোধের ঘোষণা দেওয়া হয় সংগঠনটির পক্ষ থেকে। দাবি আদায়ে রাজপথ না ছাড়ার ঘোষণা দেন তারা। পরে গভীর রাতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা অভিযান চালিয়ে তাদের শাপলা চত্বর থেকে সরিয়ে দেন।

সোমবার যুবলীগ আয়োজিত সমাবেশে শাপলা চত্বরের কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে বিএনপির উদ্দেশ্যে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, শাপলা চত্বরে থেকে কী হলো শেষ রাতে? পালিয়ে গেল না? আমি বলতে চাই না, আরও করুণ পরিণতি হবে বিএনপির। শেখ হাসিনা মাথা নত করেন না, আল্লাহ ছাড়া কাউকে ভয় করেন না। বিএনপির পরিণতি শাপলা চত্বরের চেয়েও খারাপ হবে।’

ঢাকা অবরোধ করতে বিএনপি সারাদেশ থেকে নেতাকর্মী জড়ো করেছে দাবি করে ওবায়দুল কাদের বলেন, সারাদেশ থেকে লোক এনে শহরে জড়ো করছে বিএনপি। তারা ঢাকা অবরোধ করতে চায়। আমরাও প্রস্তুত আছি। অবরোধ করলে বিএনপি অবরুদ্ধ হয়ে যাবে, বিএনপিকে অবরোধ করা হবে।

বিএনপিকে কোনো ছাড় দেওয়া হবে না জানিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন, চুরি করে এসে ঢাকায় আত্মীয়-স্বজনের বাসায় জড়ো হচ্ছে, অতিরিক্ত কাপড় আনতে বলেছেন ফখরুল। তখন আমরা কি ললিপপ খাবো? আমরাও বসে থাকব না। ১৮ অক্টোবর আমরাও বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটে জমায়েত করব। আজ যা এসেছে, ওইদিন আরও বেশি আসবে।

আজকের সমাবেশে ঢাকা মহানগরের বিভিন্ন ওয়ার্ড, থানা এবং গাজীপুর জেলা ও মহানগর থেকে যুবলীগের নেতাকর্মীরা অংশ নেন।

যুবলীগ চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশের সভাপতিত্বে ও প্রচার সম্পাদক জয়দেব নন্দীর সঞ্চালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খান নিখিল।